ব্লগের আপডেট পেতে সাবস্ক্রাইব করুন

    এখনকার ট্রেন্ড

ফারজানা কিভাবে অনলাইন প্রমোশন এবং টিস্প্রিং টুলসগুলোর ব্যবহার এর মাধ্যমে তাঁর সেলস বৃদ্ধি করেন।

শুরুতে ফারজানার সম্পর্কে কিছু জেনে নেওয়া যাক। তিনি শুধুই একজন সফল টিস্প্রিং সেলার নন বরং একজন কঠোর পরিশ্রমী এবং সৃজনশীল বাংলাদেশী মহিলা। তিনি তাঁর নিজস্ব অনলাইন ব্যবসা একদম শূন্য থেকে শুরু করেছিলেন এবং টিস্প্রিং মার্কেটিং ও বুস্টেড নেটওয়ার্ক এর মাধ্যমে সফলতার দেখা পেয়েছিলেন। তিনি এখানে তাঁর সফলতার গল্প আমাদের সাথে শেয়ার করবেন এবং অন্যদেরকেও একই কাজ করতে অনুপ্রেরনা যোগাবেন।   

ফারজানা টিস্প্রিং এর প্রতি আকৃষ্ট হলেন যখন তিনি জানতে পারলেন এটা এমন একটা প্ল্যাটফরম যেটা যে কাউকে কোন প্রকার খরচ, ঝুঁকি, বিরম্বনা ছাড়া কাস্টম প্রোডাক্ট তৈরি করার এবং বিক্রি করার সুযোগ করে দেয়। তিনি সিদ্ধান্ত নিলেন যে অনলাইন টেম্পলেট ব্যবহার করে খুব সাধারণ কিছু ডিজাইন তৈরি করে তা বিক্রি করার চেষ্টা করবেন। খুব তাড়াতাড়ি  তিনি তাঁর প্রথম সেল পেয়ে গেলেন। ঠিক সেই মুহূর্তে থেকে তিনি টিস্প্রিং কে একটি গুরুত্বপূর্ণ আয়ের উৎস হিসাবে বেছে নিলেন।

“আমি বিশ্বাস করতে পারছিলাম না যে টিস্প্রিং থেকে বিনা খরচে টাকা উপার্জন করতে পারব। আমি প্রথম সেল পেয়েছিলাম মাত্র ৩ দিন এর মধ্যে এবং তখন আমি বুঝতে পারলাম টিস্প্রিং আমার জন্য ভাল ইনকাম এর উপায় হতে পারে।”

তিনি ভালভাবে রিসার্চ করা শুরু করলেন, কিভাবে সে তার প্রথম সেলটি পেল। কিভাবে পন্য বিক্রি হয়(বুস্টেড নেটওয়ার্ক এর মাধ্যমে)? ক্রেতারা কেন তার ডিজাইনটা পছন্দ করল(কেন তার এই ডিজাইন এর মেসেজটা ক্রেতার দৃষ্টি আকর্ষণ করল)? কে এই ক্রেতা এবং তারা কোথায় থাকে(সে কাদের জন্য ডিজাইন তৈরি করবে)? তার এই অক্লান্ত পরিশ্রম এবং রিসার্চ এর মাধ্যমে তিনি তার সাকসেস কে বাড়ানোর এবং সেল বৃদ্ধি করার জন্য একটি পদ্ধতি খুঁজে পেলেন। এখন পর্যন্ত ফারজানার সেল এর অনুপাত প্রতি ৩টা কেম্পেইন এ ১টা; তিনি প্রতি ৩ টা লিস্টিং থেকে ১ টা সেল পান। এটা একটি অসাধারণ ফলাফল।

 

টিস্প্রিং টুলগুলোর মাধ্যমে সেলস বাড়ান    

ফারজানার ৮৮% সেল এসেছে টিস্প্রিং মার্কেটিং এবং বুস্টেড নেটওয়ার্ক এর মাধ্যমে। তিনি বলেন, তাঁর এই সাফল্যের পিছনে দুইটি কারন রয়েছে; ইউনিক ডিজাইন এবং লিস্টিং অপটিমাইজেশন।

ইউনিক ডিজাইন তৈরি করুন

ফারজানা এভারগ্রিন নিশ এবং ট্রেন্ড নিশ দুইটার উপরেই গুরুত্ব দিয়েছেন। এভারগ্রিন নিশের মধ্যে হবি এবং ক্যারিয়ার নিশের উপরে তিনি বিশেষভাবে পারদর্শী। ট্রেন্ড নিশের ক্ষেত্রে তিনি পিন্টারেস্ট এবং নিউজ ফলো করেন বর্তমান ট্রেন্ডিং বিষয়গুলো জানার জন্য। তিনি বলেন, পিন্টারেস্ট ডিজাইন ইন্সপায়ারেশন এর জন্য একটি অসাধারণ সাইট। উদাহরন সরুপ, যদি তিনি টেনিস নিশ নিয়ে বিশ্লেষণ করতে চান তাহলে তিনি পিন্টারেস্ট এ কোট এবং ইমেজ খুজেন ডিজাইন ইন্সপায়ারেশন এর জন্য। যখন ফারজানা কোন পছন্দের ছবি খুঁজে পান তখন তাঁর নিজের সৃজনশীলতাকে কাজে লাগিয়ে সম্পূর্ণ নতুন কিছু তৈরি করেন। তিনি সবসময় ট্রেডমার্ক এবং কপিরাইট ডাটাবেইজ এর দিকে নজর রাখেন- বিশেষকরে যখন তিনি একটি ডিজাইন এলিমেন্ট বা কোট দিয়ে নতুন একটি ডিজাইন তৈরি করতে চান।(রিসোর্সগুলো দেখুন)  

মারকেটপ্লেস সার্চ এর জন্য লিস্টিং কে অপটিমাইজ করুন

বুস্টেড নেটওয়ার্কে আপনার পণ্যকে তালিকাভুক্ত করা এবং পন্যের বিক্রি বৃদ্ধি করার জন্য বর্ণনামুলক কিওয়ারডগুলোর ব্যবহার এবং টিস্প্রিং লিস্টিং এর অপটিমাইজেশন একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। আমাদের লক্ষ্য হল বিভিন্ন রকমের ডিজাইন বুস্টেড নেটওয়ার্কে তালিকাভুক্ত করা(এবং একই রকমের কনটেন্টগুলো তালিকাভুক্ত করা থেকে এড়িয়ে যাওয়া), তাই বিক্রেতারা যদি বর্ণনামূলক ক্যাম্পেইন টাইটেল তৈরি করে তাহলে তাদের অডিয়েন্সকে সনাক্ত করতে এবং কোন বিষয়কে টার্গেট করে তারা ডিজাইন তৈরি করেছে তা বুঝতে আমাদের সুবিধা হয়, আর তাতে তালিকাভুক্ত হওয়ার সম্ভাবনাও বৃদ্ধি পায়- উদাহরণ সরূপ, ‘American Flag Bowling Shirt’ অনেক বেশি বর্ণনামূলক টাইটেল ‘Limited Edition Tee’ এই টাইটেল এর থেকে। ফারজানা কিওয়ারড টিপস এর জন্য  keywordseverywhere.com  এর মত টুল ব্যবহার করে। মনে রাখবেন কিওয়ারড স্টাফিং থেকে দূরে থাকা এবং পড়ার উপযোগী ক্যাম্পেইন ডেসক্রিপশন লেখা খুব গুরুত্বপূর্ণ– আপনার লিস্টিংটি স্প্যামী হিসাবে দেখাক আপনি নিশ্চয়ই তা চাইবেন না।   

 

সেলস কে বাড়ানোর জন্য রেডিট কে ব্যবহার করুন

যদিও ফারজানা তার সেলস এর জন্য টিস্প্রিং এর উপরেই বেশি নির্ভর করেন তবুও তিনি অরগানিক এবং পেইড প্রমোশন এর দিকে নজর দিয়েছিলেন। তিনি সবসময় পেইড এবং অরগানিক প্রমোশন এর জন্য রেডিট কে বেছে নিতেন।

“আমি পন্য বিক্রির জন্য ফেইসবুক এর চাইতে রেডিট কে বেশি প্রাধান্য দেই। আমি রেডিট এ আমার নির্দিষ্ট নিশকে টার্গেট করতাম এবং পেইড লিঙ্ক এড ক্যাম্পেইন গুলোতে সফল হতাম । আমি খুব ভাল ফল পেয়েছিলাম এবং অনেক পণ্য বিক্রি হয়েছিল। এটা উল্ল্যেখ করা জরুরি যে আমার কারমা স্কোর ২০০০ এর বেশি ছিল। তাই আপনি যদি রেডিট এর মাধ্যমে আপনার টিস্প্রিং এর পন্যের প্রমোশন করতে চান তাহলে আপনাকে রেডিট সম্পর্কে খুব ভাল ভাবে জানতে হবে এবং আগে আপনার কারমা স্কোর বাড়াতে হবে। যখন আমি কোন আর্টিকেল বা ছবি রেডিট এ পোস্ট করতাম তখন আমি সবসময় আমার টিস্প্রিং লিস্টিং এর ইউ আর এল যুক্ত করে দিতাম।”     

টিস্প্রিং এ ফারজানার ভবিষ্যৎ

ফারজানার গল্পটি আসলেই আলাদা কারন তিনিই প্রথম কোন বাংলাদেশী মহিলা যিনি অনলাইনে পণ্য বিক্রির জগতে সফলভাবে এগিয়ে যাচ্ছেন। আমরা তাঁর এই যাত্রাতে সাপোর্ট দিতে পেড়ে গর্বিত এবং আমরা দেখতে চাই নারীদের একটি দল টিস্প্রিং এর মাধ্যমে ইকমার্স সেক্টরে আধিপত্য বিস্তার করেছে!  

ফারজানা বলেন, তাঁর লক্ষ্য হল অন্যকে অনুপ্রেরনা জোগানো, বিশেষভাবে মহিলাদের, তাদের আকাঙ্খাকে পূরণ করতে এবং টিস্প্রিং এর মাধ্যমে সফলতাকে খুঁজে পেতে সাহায্য করা। “যেকোনো মহিলা পণ্য ডিজাইন করতে এবং টিস্প্রিং এর মাধ্যমে টাকা উপার্জন করতে পারে। এখানে কোন খরচ বা ঝুঁকি নাই। আপনাকে শুধু শুরু করতে হবে। আমি আমার সফলতা নিয়ে গর্বিত এবং মজার ব্যাপার হল আমি এখন আমার পরিবারের জন্য অন্য যেকোন আয়ের উৎস তৈরি করতে সক্ষম।”

ফারজানার জন্য এরপর কি অপেক্ষা করছে?

“আমার স্বপ্ন হল এশিয়ার মধ্যে টপ মহিলা সেলার হওয়া।”

তুমি এগিয়ে যাও!

 

আরো একটি সফল নারী Teespring সেলার – লেক্সি তার সফল #fedup কেম্পেইনের সেল গুলোর জন্যে Instagram ব্যবহার করেছেন!

 

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

ব্লগের আপডেট পেতে সাবস্ক্রাইব করুন

    এখনকার ট্রেন্ড

creator-menu

youtube-menu